Breaking News
Home / সারাদেশ / চাঁদাবাজি বন্ধে নির্মাণাধীন বাড়িতে পুলিশের ফেস্টুন

চাঁদাবাজি বন্ধে নির্মাণাধীন বাড়িতে পুলিশের ফেস্টুন

নির্মাণাধীন বাড়িতে চাঁদাবাজি বন্ধে ‘বিশেষ বিজ্ঞপ্তি’র ফেস্টুন সাটিয়ে ব্যাপক প্রশংসা কুড়িয়েছে বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ। বিএমপি’র চারটি থানা এলাকায় গত দুইদিন ধরে নির্মাণাধীন বাড়িগুলোতে এ ফেস্টুন সাটিয়ে দেওয়া হয়েছে।

বিশেষ বিজ্ঞপ্তির ওই ফেস্টুনের শুরুতে লেখা রয়েছে, এ বাড়ির নির্মাণ কাজ বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ পর্যবেণ করছে। পরবর্তী তিনটি পয়েন্টে লেখা আছে-বাড়িওয়ালা নিজ পছন্দমতো সুবিধাজনক জায়গা থেকে ইট, বালু, রডসহ অন্যান্য নির্মাণ সামগ্রী ক্রয় করবেন।

কেউ ইচ্ছার বিরুদ্ধে কোনো প্রকার নির্মাণ সামগ্রী ক্রয় ও বিক্রির চেষ্টা করলে অথবা চাঁদা দাবি করলে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

সবশেষে লেখা রয়েছে-যেকোনো চাঁদাবাজি সংক্রান্ত অভিযোগ থাকলে নিম্নলিখিত নম্বরে যোগাযোগ করার অনুরোধ করা হলো। এরপর সংশ্লিষ্ট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি), সহকারী কমিশনার (এসি), জোনের উপ-পুলিশ কমিশনার ও মেট্রোপলিটন পুলিশের কন্ট্রোল রুমের নাম্বার দেওয়া হয়েছে।

এ ব্যাপারে সোমবার সকালে উপ-কমিশনার (দণি) মোঃ আলী আশরাফ ভূঞা বিপিএম বার বলেন, মেট্রোপলিটন পুলিশের আওতাধীন চার থানা এলাকার নির্মাণাধীন ভবনগুলোতে ‘বিশেষ বিজ্ঞপ্তি’র ফেস্টুন লাগিয়ে দেওয়া হয়েছে।

যাতে করে যেকোনো ধরনের চাঁদাবাজির ঘটনা ঘটলেই তাৎণিক আমাদের পুলিশ সদস্যদের বিষয়টি অবগত করতে পারেন। আর আমরাও এ বিষয়ে তাৎণিক ব্যবস্থা নিতে পারবো।

চাঁদাবাজি বন্ধে এ ধরনের উদ্যোগ চলমান থাকবে জানিয়ে তিনি আরও বলেন, নির্মাণাধীন ভবনে বিভিন্ন কৌশলে চাঁদাবাজির বেশ কিছু মৌখিক অভিযোগ রয়েছে। যার প্রেেিত মেট্রোপলিটন পুলিশ উদ্যোগী হয়েই এ কাজটি করছে। এরপরেও যারা সতর্ক হবে না, তাদের বিরুদ্ধে কঠোর আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

নির্মাণাধীন ভবন মালিকদের একাধিক সূত্রে জানা গেছে, মেট্রোপলিটন এলাকায় মতাসীনদের ছত্রছায়ায় থাকা বিভিন্ন বালুর খোলা ও ইটের খোলা থেকে ইট-বালু কেনার জন্য বাড়ির মালিকদের বাধ্য করা হয়।

পাশাপাশি তাদের কেউ কেউ এলাকাভিত্তিক রড, সিমেন্ট, স্যানিটারি ফিটিংস, বৈদ্যুতিকসহ বিভিন্ন সামগ্রীর খুচরা ব্যবসায়ী কিংবা ব্যবসার সাথে জড়িত। পণ্যের গুণগত মান থাকুক বা না থাকুন সেখান থেকেই ইচ্ছের বিরুদ্ধে পণ্য কিনতে বাড়ির মালিকদের বাধ্য করা হয়।

এছাড়া অসুস্থতা, পিকনিকসহ বিভিন্ন কৌশলে নির্মাণাধীন ভবন মালিকদের কাছ থেকে চাঁদাবাজি করে আসছিল একটি মহল।

About admin

Check Also

আগৈলঝাড়ায় শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট গ্রহন, চলছে ভোট গননা

আইন শৃংখলা বাহিনীর কঠোর নিরাপত্তায় ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের তৃতীয় ধাপে বরিশালের আগৈলঝাড়ায় ভোটার উপস্থিতি …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *